Header Ads

৫ জানুয়ারির নির্বাচন ভোটারবিহীন ছিল না: শেখ হাসিনা

বক্তব্য দিচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা -ফোকাস বাংলা
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, ৫ জানুয়ারির

শনিবার প্রধানমন্ত্রীর সরকারি বাসভবন গণভবনে আওয়ামী লীগ কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের বৈঠকের সূচনা বক্তব্যে শেখ হাসিনা এ কথা বলেন।

আওয়ামী লীগ সভাপতি আরও বলেছেন, যারা খুনি, যুদ্ধাপরাধ, রাজাকার, আলবদরকে আশ্রয়-প্রশ্রয় দিয়েছে, যারা দুর্নীতি, সন্ত্রাস ও লুটপাট করেছে- তারা যেন আর ক্ষমতায় না আসতে পারে। তারা ক্ষমতায় এলে দেশের কল্যাণ হবে না, উন্নয়ন হবে না। তারা মানুষের কল্যাণ করতে পারে না। বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার উকিল নোটিশের জবাব সময়মতো দেওয়া হবে বলেও এ সময় জানান প্রধানমন্ত্রী।

পদ্মা সেতু নিয়ে খালেদা জিয়ার বক্তব্যের জবাবে প্রধানমন্ত্রী বলেন, খালেদা জিয়া নাকি বলেছেন, এই পদ্মা সেতু জোড়াতালি দিয়ে বানানো হয়েছে, কেউ উঠবেন না। আমরাও দেখব, এই সেতু নির্মিত হওয়ার পর খালেদা জিয়া কিংবা বিএনপির কোনো নেতা ওঠেন কি-না। খালেদা জিয়া আরও অদ্ভুত কথা বলেছেন। উদ্বোধনের পর নাকি সাবমেরিন ডুবে গেছে। সাবমেরিন এমনিতেই ডুবে থাকে। তিনি মানসিকভাবে অসুস্থ কি-না, তার মাথায় সমস্যা আছে কি-না সেটাও পরীক্ষা করে দেখার দরকার। তিনি কোনো এজেন্ট পাঠিয়ে বোমা মেরে সাবমেরিন ডুবিয়ে দিতে চান কি-না, সেটাও দেখতে হবে।

সরকারের উন্নয়নের সফলতা তুলে ধরে প্রধানমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশ এখন বিশ্বে মর্যাদা পাচ্ছে, সম্মান পাচ্ছে। বাংলাদেশ এখন উন্নয়নের রোল মডেল। বাংলাদেশ এগিয়ে যাচ্ছে, এগিয়ে যাবে।

প্রধানমন্ত্রীর সূচনা বক্তব্যের পর তার সভাপতিত্বে কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের বৈঠক শুরু হয়। বৈঠকে সর্বশেষ আর্থসামাজিক-রাজনৈতিক পরিস্থিতি নিয়ে আলোচনা ও সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। বৈঠকে কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদ নেতারা যোগ দেন।
নির্বাচন ভোটারবিহীন ছিল না। মানুষ ভোট দিয়েছিল বলেই আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় এসেছে। উন্নয়ন ও গণতন্ত্রের ধারাবাহিকতা অব্যাহত রেখে চার বছর পার করেছে। এরশাদ ও খালেদা জিয়া ভোটারবিহীন নির্বাচন করে টিকে থাকতে পারেনি।

No comments

Powered by Blogger.